Sunday, January 19

আলিয়ার এ চেহারা দেখেনি কেউ



পাকিস্তানে থাকতে হবে। ভারতের হয়ে পাকিস্তানে থেকে, সেখানকার খবর সংগ্রহ করতে হবে। আর সেই কাজ করতেই গিয়ে আলিয়া যা করলেন।

প্রেক্ষাপট ১৯৭০। ওই সময় ভারতের এক কন্যার সঙ্গে বিয়ে হয় পাকিস্তানের এক পুলিশ অফিসারের। ১৯৭১ সালে ভারতের ওই মেয়েকে বিয়ে দিয়ে পাকিস্তানে পাঠানো হয়। কিন্তু, ভারতের স্বার্থেই পাকিস্তানি পুলিশ অফিসারের সঙ্গে বিয়ে দেওয়া হয় আলিয়ার।

এরপর সাধারণ এক গৃহবধূ থেকে কীভাবে তিনি ভারতীয় গোয়েন্দা দপ্তরের একজন অন্যতম সদস্য হয়ে ওঠেন, আলিয়ার ‘রাজি’ সেই গল্পই বলবে আপনাকে।

করণ জহরের ‘স্টুডেন্ট অফ দ্য ইয়ার’-এর হাত ধরে বলিউডে অভিষেক করেন আলিয়া ভাট। এরপর হাইওয়ে, টু স্টেটস, উড়তা পাঞ্জাব, কাপুর এন্ড সন্স, বদ্রীনাথ কি দুলহানিয়া, হাম্পটি শর্মা কি দুলহানিয়ার মতো একাধিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন আলিয়া। কিন্তু, মহেশ ভাট কন্যার এমন লুক আগে কখনও দেখেননি।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *