Friday, January 17

ওসমানীনগরে পূজা পরিষদের সন্মেলন হলেও গঠন হয়নি কার্যনির্বাহি কমিটি



ওসমানীনগর প্রতিনিধি:: বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ ওসমানীনগর উপজেলা শাখার দ্বি-বার্ষিক সন্মেলন শনিবার অনুষ্টিত হয়। উপজেলার তাজপুরস্থ রবিদাস-লালকৈলাস সার্বজনীন দুর্গা মন্দিরে জাতীয় ও দলীয় পতাকা এবং পংকজ ভট্রাচার্য কতৃক গীতা পাঠের মধ্যমে অনুষ্টিত উক্ত সভায় সভাপতিত্ব করেন ওসমানীনগর উপেজলা পূজা উদযাপন পরিষদের আহবায়ক সত্যেন্দ্র কুমার পাল(কানু)। 
আহবায়ক কমিটির সদস্য ভাস্কর দত্ত ও মনোজ দাশের পরিচালনায় এতে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ সিলেট জেলার সভাপতি ‌এ্ডভোকেট নিরঞ্জন কুমার দে, বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সহ সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা গোপীকা শ্যাম পুরকায়স্থ, প্রধান বক্তা হিসাবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ সিলেট জেলার সাধারন সম্পাদক এ্ডভোকেট রঞ্জন ঘোষ, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক অরুন দেবনাথ সাগর, বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত বক্তব্য রাখেন রবিদাশ দুর্গা মন্দিরের সভাপতি সুশিল রঞ্জন দাশ চৌধুরী,বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ সিলেট জেলার অন্যতম সদস্য পিনাক পানি ভট্রাচার্য্য,
তাজপুর ইউপি চেয়ারম্যান ইমরান রব্বানী, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার দক্ষিন সার্কেল মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম, ওসমানীনগর উপজেলা হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি সত্যেন্দ্র কুমার দেব,জেলা ঐক্য পরিষদের উপ-গন সংযোগ সম্পাদক ডিকে জয়ন্ত,উপজেলা ঐক্য পরিষদের সাধারন সম্পাদক চয়ন পাল, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক প্রদীপ পুরকায়স্থ, প্রতাপ তালুকদার, নির্মল দেব, সুজিত দেব, অরুনোদয় পাল ঝলক,শিক্ষক অজিত দেব, সন্তোষ দেব, অজিত পাল, অজয় দেব,ওসমানীনগর উপেজলা ছাত্র-যুব ঐক্য পরিষদের সভাপতি পাপ্পু বহ্নি, সাধারন সম্পাদক দেবব্রত দেব শিমুল, ওসমানীনগর উপেজলা পূজা উদযাপন পরিষদের আহবায়ক কমিটর সদস্য জয়ন্ত কুমার দেব(আরকে জয়ন্ত), শঙ্কর লাল সেন, চয়ন দেব, গোপাল দাশ, শশাংক কুমার পাল, নান্টু দেব, নৃপেন্দ্র মালাকারসহ উপজেলার বিভিন্ন ইউপি পুজা উদযাপন পরিষদ ও ঐক্য পরিষদের নেতৃবৃন্দ।
সন্মেলনের দ্বিতীয় অধিবেশনে জেলা-উপজেলা এবং ইউপির নেতৃবৃন্দ প্রায় ২ ঘন্টা গোপন বৈঠক করলেও কার্যকর কমিটি ঘোষনা করতে পারেননি। ইউপির নেতৃবৃন্দ নিজেদের ভোটাধিকার প্রয়োগের দাবি জানালেও অজানা কারনে জেলা কমিটি ভোট গ্রহন করেননি এমন অভিযোগ করেছেন এ অঞ্চলের ভোটাররা। এলাকার একাধিক ইউিপর সভাপতি ও সাধারন সম্পাদক বলেন জেলা কমিটি আমাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে দেননি তবে আমরা দাড়িয়ে সবাই একসাথে বলেছি আমরা সভাপতি পদে
আহবায়ক সত্যেন্দ্র কুমার পাল(কানু) এবং সাধারন সম্পাদক পদে ভাস্কর দত্তের কথা বলেছি আমরা আশাবাদি জেলা কমিটি এটাকে কন্ঠভোট হিসবে গ্রহন করবেন এবং আমাদেকে নিজের নেতা নির্বাচনের ব্যাপারে মূল্যায়ন করবেন।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *