Saturday, January 18

বিচ্ছিন্ন হাতের যে ছবি দেখে আঁতকে উঠেছেন ঢাকাবাসী



ছবিটি ঢাকার সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছিল মঙ্গলবার। পাশাপাশি লেগে থাকা দুটি বাসের মধ্যে ঝুলে আছে বিচ্ছিন্ন একটি হাত।

ঢাকার সাধারণ মানুষের অনেকে সকালে পত্রিকায় বিচ্ছিন্ন হাতের সেই ছবি দেখে আঁতকে উঠেছেন। সামাজিক মাধ্যমে চাঞ্চল্য এবং বিতর্ক সৃষ্টি করে ঘটনাটি।

একজন আইনজীবী ছবিটি দেখে এতই বিচলিত হন যে তিনি একটি জনস্বার্থ মামলা করেন।

আইনজীবী ঘটনাটি আদালতের নজরে আনলে দুই বাসের রেষারেষিতে হাত হারানো এই শিক্ষার্থীর চিকিৎসা ব্যয় সংশ্লিষ্ট বাস কোম্পানি দু’টিকে বহন করার নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্ট।

মঙ্গলবার ঢাকায় সোনারগাঁ হোটেলের পাশে রাস্তায় এই দুর্ঘটনা ঘটে। হাত-হারানো তিতুমীর কলেজের এই ছাত্র রাজীব হোসেনের চিকিৎসা চলছে ঢাকার একটি হাসপাতালে।

বাসের যাত্রী এবং বিশেষজ্ঞরা মনে করেন, অব্যবস্থাপনার কারণে রাস্তায় পরিবহন চলাচলের অসুস্থ প্রতিযোগিতায় যাত্রীদের ঝুঁকির মধ্যে থাকতে হয়। ঘটনাটি তাদের মাঝে উদ্বেগ বাড়িয়েছে।

মহাখালী এলাকায় রাস্তায় বেশ কয়েকজনের সাথে আমার কথা হয়, যাদের বেশিরভাগই প্রতিদিন বাসে চলাচল করেন।

তাদের বক্তব্য হচ্ছে, বাসে চলাচল করতে গিয়ে তাদের মনে হয়, নগরীর রাস্তায় পরিবহন ব্যবস্থায় যেনো কারও কোন নিয়ন্ত্রন নেই। ঝুঁকি নিয়েই তাঁরা চলাচল করে থাকেন।

মহাখালী এলাকার সরকারি তিতুমীর কলেজের স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র রাজীব হোসেন যাত্রবাড়ীর একটি মেসে থাকেন। সেখান থেকে তিনি মঙ্গলবার দুপুরে বিআরটিসি বাসে উঠেছিলেন কলেজে যাওয়ার জন্য।

কিন্তু রাজধানীর একটি অন্যতম প্রধান সড়কে সার্ক ফোয়ার কাছে ব্যক্তি মালিকানাধীন স্বজন পরিবহণের একটি বাস সেখানে দ্রুতগতিতে এসে বিআরটিসি বাসটির গা ঘেঁষে এগোতে থাকে। বিবিসি বাংলা

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *