Wednesday, January 22

বিশ্বকাপে বাংলাদেশের কিশোরের ৬ গোল!



বুকে বাংলাদেশের পতাকা দেখেই বোঝা যাচ্ছে সামনের খেলোয়াড়টি রাফি। ছবি: বাফুফেবিশ্বকাপ উপলক্ষে মস্কোতে হয়ে গেল খুদে ফুটবল উৎসব। সেখানে একজন ডিফেন্ডার হিসেবে বাংলাদেশ থেকে অংশগ্রহণ করেছিল রাফি। তিন ম্যাচে তার পা থেকে এসেছে ৬ গোল।

বিশ্বকাপ ফুটবল মানেই রোমাঞ্চ। ‘গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ’ বাক্যটি দিয়ে যে আসরকে চিত্রিত করা হয়, সেটি তো রোমাঞ্চ জাগাবেই। বাছাইপর্ব ডিঙিয়ে সেখানে খেলা বাংলাদেশের জন্য অলীক স্বপ্নই। কিন্তু বিশ্বকাপ উপলক্ষে মস্কোতে মঙ্গলবার হয়ে যাওয়া খুদে ফুটবল উৎসব মাতিয়ে দিয়েছে বাংলাদেশের কিশোর গোলাম রাফি। তিন ম্যাচ খেলে এক হ্যাটট্রিকসহ গোল করেছে ৬টি।

রাফির দল গালাপগোস সি লায়ন টিম। ছবি: বাফুফেরাফির দল গালাপগোস সি লায়ন টিম। ছবি: বাফুফেমস্কোর স্পাটার্ক স্টেডিয়ামে খুদে ফুটবলারদের নিয়ে শুরু হওয়া খুদে এই ফুটবল উৎসবের পোশাকি নাম ‘ফ্রেন্ডশিপ ফর ফুটবল’। ২১১টি দেশের খুদে ফুটবলারদের উৎসবে ডিফেন্ডার হিসেবে বাংলাদেশ থেকে সুযোগ পেয়েছে নারায়ণগঞ্জের রাফি। আজকে তার দল গালাপগোস সি লায়ন টিম তিন ম্যাচ খেলে দুটোতে হেরে পরবর্তী রাউন্ডে উঠতে না পারলেও রাফির পারফরমেন্স ছিল উজ্জ্বল। দলের একমাত্র জয়ের ম্যাচে রাফির পা থেকে এসেছে হ্যাটট্রিক।

আজ দিনের প্রথম ম্যাচে হোয়াল শার্কের বিরুদ্ধে ২-৪ গোলে হেরে যায় রাফির গালাপগোস। দলের পক্ষে দুটি গোলই করেছে রাফি। দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে রাফির হ্যাটট্রিকের ওপর ভর করে ঘারিয়ালের বিপক্ষে ৯-০ গোলের বড় জয় পায় গালাপগোস। আর দিনের শেষ ম্যাচে চেতাহর বিপক্ষে ২-৩ গোলে হেরে গ্রুপ পর্ব থেকে বিদায়। এ ম্যাচেও রাফির পা থেকে এসেছে এক গোল। ফাইভ এ সাইড এ খেলায় রাফির দলের অন্যান্য সদস্যরা ছিল চীন, সাইপ্রাস, লাইবেরিয়া, অ্যাঙ্গোলা, আইভরি কোষ্ট, তুর্কস এন্ড সাইকাস ইসল্যান্ডসের।

তবে ফুটবল উৎসব থেকে বিদায় নিলেও রাফির সামনে এখনো অপেক্ষা করছে বড় এক স্বপ্নের হাতছানি। রাশিয়া ও সৌদি আরবের মধ্যকার উদ্বোধনী ম্যাচটি মাঠে বসে উপভোগ করার সৌভাগ্য হচ্ছে তার।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *