Sunday, January 19

সাংবাদিক ইকবাল মনসুরের স্মরণে শোক সভা



ডেস্ক নিউজ:: ইকবাল মনসুর একজন সৎ, নিষ্ঠাবান এবং সাহসী সাংবাদিক ছিলেন। সিলেটের সাংবাদিকতা অঙ্গনে তিনি একজন উজ্জ্বল নক্ষত্র। তিনি তাঁর আন্তরিকতাপূর্ণ আচরণ দিয়ে সহজে মানুষের মণের মণিকোঠায় স্থান করে নিতে পারতেন। তাঁর মৃত্যুতে সিলেটের সাংবাদিকতা অঙ্গনে এক অপূরণীয় ক্ষতি সাধিত হয়েছে। তিনি তাঁর কাজের মাধ্যমে সিলেটের সাংবাদিকতা অঙ্গনসহ সর্বস্তরের মানুষের কাছে স্মরণীয় হয়ে থাকবেন।

সোমবার (১৪ মে) সিলেট জেলা পরিষদ মিলনায়তনে বাংলাদেশ ফটো জার্নালিস্ট এসোসিয়েশন সিলেট বিভাগীয় কমিটির উদ্যোগে কমিটির সাবেক সভাপতি প্রখ্যাত ফটো সাংবাদিক ইকবাল মনসুর স্মরণে আয়োজিত শোক সভা ও দোয়া মাহফিলে বক্তারা এ কথাগুলো বলেন।

এসোসিয়েশনের সভাপতি আব্দুল বাতিন ফয়সলের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক শংকর দাশ ও সদস্য মো. দুলাল হোসেনের যৌথ সঞ্চালনায় অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সদস্য ও সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক সাংসদ শফিকুর রহমান চৌধুরী, সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি ও সিলেট স্টেশন ক্লাবের সভাপতি এডভোকেট এমাদুল্লাহ শহিদুল ইসলাম শাহীন, সিলেট মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক বদরুজ্জামান সেলিম, সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক বাফুফে সদস্য মাহি উদ্দিন আহমদ সেলিম, সিলেট জেলা বিএনপির উপদেষ্টা ইলিয়াছ আলী মেম্বার, জেলা প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক শাহ দিদার আলম চৌধুরী নবেল, সিলেট প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ইকবাল মাহমুদ, ফটো জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি আতাউর রহমান আতা।

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ বলেন, সাংবাদিকতা একটি মহান পেশা। সেই মহান পেশাকে অবলম্বন ইকবাল মনসুর মানুষের কল্যাণে কাজ করে গেছেন। সত্যিকার অর্থে ইকবাল মনসুর একজন সাহসী, ত্যাগী, নিষ্ঠাবান সাংবাদিক ছিলেন।

সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান বলেন, সাংবাদিক ইকবাল মনসুর তাঁর কাজের ব্যাপারে অত্যন্ত নিবেদিত এবং আনুগত্যশীল ছিলেন। বড়দের তিনি অত্যন্ত সম্মানের চোখে দেখতেন। ছবির মাধ্যমে তিনি সর্বোপরি সমাজ ও দেশের কল্যাণের জন্য কাজ করেছেন। তিনি সকলের মাঝে স্মরণীয় হয়ে থাকবেন।

সিলেট মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক বদরুজ্জামান সেলিম বলেন, মানুষের জন্য কাজ করেছেন ইকবাল মনসুর। এইজন্য তিনি মানুষের অন্তরে তিনি স্থান নিয়েছেন। আজকের এই সভায় সকলের স্বত:স্ফূর্ত অংশগ্রহণ তারই প্রমাণ বহন করে।

সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ বলেন, যেখানেই অন্যায় দেখতেন সেখানেই ইকবাল মনসুর প্রতিবাদ করতেন তাঁর ক্যামেরার ভাষায়। তাঁর মৃত্যুতে সিলেটের সাংবাদিকতা অঙ্গনে একটি বিশাল ক্ষতের সৃষ্টি হল।

সভাপতির বক্তব্যে আব্দুল বাতিন ফয়সল বলেন, ইকবাল মনসুর তাঁর কাজের মাধ্যমে আমাদের সকলের কাছে অত্যন্ত প্রিয়পাত্র হয়েছেন। তাঁর অসমাপ্ত কাজ সমাপ্ত করা আমাদের একান্ত কর্তব্য। তার পরিবার-পরিজনের দেখাশোনার মাধ্যমে সেই দায়িত্ব পালন করতে হবে। তাঁর মত সৎ সাংবাদিকতায় আমাদেরকে এগিয়ে আসতে হবে।

সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সিলেট মহানগর ডেপুটি কমান্ডার মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালিক, সিলেট জেলা বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক মাহবুব রব চৌধুরী ফয়সল, সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের সহসভাপতি সাত্তার আজাদ, টেলিভিশন সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি কামকামুর রাজ্জাক, ইলেকট্রনিক জার্নালিস্ট এসোসিয়েশন (ইমজা) এর সভাপতি আশরাফুল কবির, সিনিয়র সাংবাদিক আব্দুল মালিক জাকা, সিলেট প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম, প্রবাসী সাংবাদিক সাঈদ চৌধুরী, সিলেট কল্যাণ সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি শ্রেষ্ঠ যুব সংগঠক পদকপ্রাপ্ত মোহাম্মদ এহসানুল হক তাহের, সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের সহসাধারণ সম্পাদক মো. নাসির উদ্দিন, সিলেট অনলাইন প্রেসক্লাবের সভাপতি মুহিত চৌধুরী, এসোসিয়েশনের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক নুরুল ইসলাম, দৈনিক শ্যামল সিলেটের সহকারী সম্পাদক মতিউল বারী খোরশেদ, সিলেট টিসিজি এর আহবায়ক শ্যামানন্দ দাশ, সিলেট প্রেসক্লাবের নির্বাহী সদস্য ফয়সল আলম, এসোসিয়েশনের সাবেক সভাপতি শেখ আশরাফুল আলম নাসির, দৈনিক কাজিরবাজারের বার্তা সম্পাদক শোয়েব বাসিত, এসোসিয়েশনের সিনিয়র সহসভাপতি মামুন হাসান, ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক ইউসুফ আলী, কার্যকরী সদস্য নুরুল ইসলাম, রফিকুল ইসলাম সুজন, সদস্য কয়েছ আহমদ, এফ এ মুন্না, শেখ আব্দুল মজিদ, রতনা আহমদ তামান্না, হুমায়ূন কবীর লিটন, শাহিন আহমদ, সুব্রত দাস, শহিদুল ইসলাম, ইদ্রিছ আলী, আবু বকর, এসোসিয়েশনের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য কুমার গণেশ পাল, আফতাব উদ্দিন, দৈনিক সংগ্রামের ব্যুরো চীফ কবির আহমদ, ইকবাল মনসুরের ঘনিষ্ট বন্ধু শাহেদ আহমদ সুমিন, একরাম হোসেন, এস.আই সবুজ, আকবর আলী।

অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন সিলেট এক্সপ্রেসের স্টাফ রিপোর্টার মো. আব্দুল বাছিত। অনুষ্ঠানের শেষে মোনাজাত পরিচালনা করেন সিলেট কোরআন শিক্ষা একাডেমির পরিচালক ক্বারী মাওলানা সিরাজুল ইসলাম।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *