Wednesday, January 22

Day: November 8, 2019

অন্য দল থেকে আ’লীগে আসা সবাই অনুপ্রবেশকারী নন: কাদের

অন্য দল থেকে আ’লীগে আসা সবাই অনুপ্রবেশকারী নন: কাদের

জাতীয়
নিউজ ডেস্ক ;: আওয়ামী লীগে যারা অন্য দল থেকে এসেছেন তারা সবাই অনুপ্রবেশকারী নন বলে জানিয়েছেন দলের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। যাদের বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক সংশ্লিষ্টার অভিযোগ আছে এবং যারা বিভিন্ন কারণে বিতর্কিত, তারাই অনুপ্রবেশকারী বলে জানিয়েছেন তিনি। শুক্রবার (৮ নভেম্বর) আওয়ামী লীগের রাজশাহী জেলা ও মহানগর শাখার নেতাদের সঙ্গে কেন্দ্রীয় নেতাদের মতবিনিময় সভায় ওবায়দুল কাদের একথা জানান। বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। ওবায়দুল কাদের বলেন, পার্টিতে যারা এসেছেন তারা সবাই অনুপ্রবেশকারী নন। অনেক ক্লিন ইমেজের ভালো লোক আমাদের পার্টিতে এসেছেন। যাদের বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক সংশ্লিষ্টতা, মামলা ও দুর্নীতির অভিযোগ নেই, তারা অনুপ্রবেশকারী নন। যাদের সাম্প্রদায়িক সংশ্লিষ্টতার অভিযোগ আছে, বিভিন্ন কারণে বিতর্কিত, তারাই অনুপ্রবেশকারী। আমাদের
ফিলিপাইনের ‘মাতমো’ বঙ্গোপসাগরে এসে ‘বুলবুল’

ফিলিপাইনের ‘মাতমো’ বঙ্গোপসাগরে এসে ‘বুলবুল’

জাতীয়
নিউজ ডেস্ক :: ফিলিপাইন সাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় ‘মাতমো’ই ‘বুলবুল’ হয়ে এক হাজার ৮০০ কিলোমিটার দূরবর্তী ভারতের আন্দামান সাগরে (বঙ্গোপসাগরের অংশ) এসে পুনরুজ্জীবিত হয়েছে। শুক্রবার (৮ নভেম্বর) আবহাওয়া বিশেষজ্ঞদের বরাতে এমন তথ্যই জানিয়েছে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম। সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়, গত ২৪ অক্টোবর ফিলিপাইন সাগরে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়েছে মাতমো। যার ফলে ভারী বর্ষণ ও বন্যা সৃষ্টি হয় ফিলিপাইনসহ এর আশপাশের এলাকায়। পরে গত ৩০ অক্টোবর শক্তি সঞ্চয় করে মাতমো চলে যায় দক্ষিণ চীন সাগরে। শক্তি সঞ্চয় করে ধীরে ধীরে পশ্চিমের দিকে এগোতে থাকে ঘূর্ণিঝড় মাতমো। এরপর গত ৩১ অক্টোবর এটি আঘাত হানে ভিয়েতনাম উপকূলে। সেসময় বাতাসের গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ১১২ কিলোমিটার। আর বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয় ২০০ মিলিমিটার। এরপর গত ৬ নভেম্বর আন্দামান সাগরে এসে পুনরায় শক্তি সঞ্চয় করে ঘূর্ণিঝড় মাতমো। এসময় ভারতীয় আবহাওয়া অধিদপ্তর এটির নাম দেয়
ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’র ক্ষতি এড়াতে সর্বাত্মক প্রস্ততি সরকারের

ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’র ক্ষতি এড়াতে সর্বাত্মক প্রস্ততি সরকারের

জাতীয়
নিউজ ডেস্ক :: প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’র কারণে সমুদ্রবন্দরগুলোতে ৪ নম্বর স্থানীয় হুঁশিয়ারি সংকেত দেখানোর পর জরুরি সভা ডেকেছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়। ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষয়ক্ষতি এড়াতে সরকারের পক্ষ থেকে সবরকমের প্রস্তুতিও নেওয়া হয়েছে। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব শাহ কামাল বলেন, পূর্বাপর অভিজ্ঞতার আলোকে সবরকমের প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। জেলা প্রশাসকদের নির্দেশ দিয়েছি। উপকূলীয় জেলা প্রশাসনের কাছে শুকনো খাবার পাঠাচ্ছি। ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কর্মসূচি (সিপিপি) ভোলান্টিয়ার মাঠে নেমেছে। পূর্ব প্রস্তুতি সবরকমের নেওয়া হয়েছে। তিনি জানান, শুক্রবার বিকেল ৩টায় সচিবালয়ে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ে জরুরি সভা ডাকা হয়েছে। সভা শেষে সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে ব্রিফ করা হবে। (সুত্র ::বাংলা নিউজ)